১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩০শে চৈত্র, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

EN

কদিন পর এশিয়া কাপ, স্বাগতিক চূড়ান্ত কাল!

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ৭:০৬ অপরাহ্ণ , ১৮ আগস্ট ২০১৮, শনিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 6 years আগে

স্পোর্টস ডেস্ক : বাংলাদেশ সর্বশেষ তিন এশিয়া কাপের আয়োজক ছিল। এর মধ্যে দুবার ফাইনালও খেলেছে। এবার এশিয়া কাপ হচ্ছে আরব আমিরাতে; যদিও তা হওয়ার কথা ছিল ভারতে। এ-সংক্রান্ত আনুষ্ঠানিক চুক্তি হলো গতকাল

২০১৮ এশিয়া কাপ আরব আমিরাতে হবে। পুরোনো-বাসি খবর সংবাদের প্রথম বাক্যে লিখতে নেই। কিন্তু লিখতে যে হচ্ছেই। অনেক আগে আয়োজক দেশ, ভেন্যু, তারিখ, ম্যাচের সূচি—সব ঠিক হয়ে গেলেও আসল আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হলো গতকাল! ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) সঙ্গে চুক্তি হলো আমিরাত ক্রিকেট বোর্ডের (ইসিবি)।

আসলে এবারের এশিয়া কাপের আয়োজক হওয়ার কথা ছিল ভারতের। ভারত-পাকিস্তান টানাপোড়েনের কারণে আগের তিনটি এশিয়া কাপই হয়েছে বাংলাদেশে। এবার ভেন্যু বদলে ভারতে আয়োজন করার কথা থাকলেও আড়ালের জটিলতা সেই দুই দেশের সম্পর্কই। ফলে, ভারত অনেক আগেই আরব আমিরাতকে এশিয়া কাপ আয়োজনরে ভার দিয়ে রেখেছিল। ৬ দলের এই টুর্নামেন্ট দুবাই ও আবুধাবিতে ১৫ সেপ্টেম্বর শুরু হয়ে শেষ হবে ২৮ সেপ্টেম্বর। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড শেষ পর্যন্ত সরকারের সবুজ সংকেত না পাওয়ায় আরব আমিরাতকে আয়োজনের ভার দিয়েছে।

শুধু প্রশ্নটা এক জায়গায় আটকে ছিল। আয়োজক কি ভারতই হবে, শুধু আয়োজন করবে আরব আমিরাত? যেমন পাকিস্তানের অনেক ম্যাচ দুবাই-আবুধাবিতে হয়। সেটার আয়োজন পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডই (পিসিবি) থাকে। এ নিয়ে বিসিসিআইয়ের মধ্যে দ্বিধাদ্বন্দ্ব ছিল বলেই হয়তো এত দিন চুক্তি হয়নি। তবে কাল সেই আনুষ্ঠানিকতাও সম্পন্ন হয়ে গেল। আরব আমিরাতই আয়োজন করবে এশিয়া কাপ। ভারত অংশীদার আয়োজক হিসেবে আমিরাতকে সহযোগিতা দেবে। যদিও টুর্নামেন্টের লভ্যাংশ কীভাবে দুই বোর্ডের মধ্যে ভাগাভাগি হবে, তা পরিষ্কার নয়। আয়োজক দেশের মূল টাকা আসে স্পনসর ও টিকিট মানি থেকে। টিভি সম্প্রচারের পুরোটা এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের (এসিসি) পকেটে যায়। টুর্নামেন্ট আয়োজন বাবদে এসিসি অবশ্য ২৫ লাখ ডলার বরাদ্দ করেছে। সেটি পুরোটাই পাবে আরব আমিরাত। যদিও খবর এসেছে, আয়োজন ব্যয় বাজেট ছাড়িয়ে যাচ্ছে।

সে যা-ই হোক, এশিয়া কাপ তার আঁতুড়ঘরে ফিরছে। এ নিয়ে আরব আমিরাতও খুশি। কাল চুক্তি শেষে আমিরাত ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান শেষ নাহিয়ান বিন মুবারক আল নাহিয়ান আশা প্রকাশ করেছেন, জমজমাট এক আসর হবে এবার। আয়োজক দেশগুলোর প্রচুরসংখ্যক প্রবাসী থাকে আমিরাতে। তাঁরা নিজ নিজ দলকে সমর্থন দিতে গ্যালারিতে ভিড় জমাবেন বলে আশা আমিরাতের। তা ছাড়া আমিরাতও বাছাইপর্ব পেরিয়ে আসতে পারলে স্থানীয় দর্শকদের সংখ্যা বাড়বে।

১৯৮৪ সালে প্রথম এশিয়া কাপের আয়োজন করেছিল আরব আমিরাত। সর্বশেষ ১৯৯৫ সালে এখানে এ আসর বসেছিল। ১০ বছর পর এবার এশিয়া কাপ ৬ দলের টুর্নামেন্ট হচ্ছে। বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, আফগানিস্তান—এই পাঁচ দেশের সঙ্গে যুক্ত হবে বাছাইপর্ব পেরিয়ে আসা একটি দল। ২৯ আগস্ট ৬ দলের সেই বাছাইপর্ব শুরু হচ্ছে। সব মিলিয়ে তাই এশিয়া কাপ হবে আসলে ১১ দলের। বাছাইপর্ব হবে মালয়েশিয়ায়।
বাছাই পর্বের শীর্ষ দলটি ভারত ও পাকিস্তানের সঙ্গে যুক্ত হবে ‘এ’ গ্রুপে। ‘বি’ গ্রুপে বাংলাদেশের সঙ্গে আছে শ্রীলঙ্কা ও আফগানিস্তান। দুই গ্রুপের শীর্ষ দুটি দল খেলবে সুপার ফোর। সুপার ফোরে প্রত্যেক দল তিনটি করে ম্যাচ খেলার পর শীর্ষ দুই দলকে নিয়ে হবে ফাইনাল।

 গ্রুপপর্ব (তারিখ)           ম্যাচ     ভেনু
১৫ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা দুবাই
১৬ সেপ্টেম্বর পাকিস্তান-বাছাই দল দুবাই
১৭ সেপ্টেম্বর শ্রীলঙ্কা-আফগানিস্তান আবুধাবি
১৮ সেপ্টেম্বর ভারত-বাছাই দল দুবাই
১৯ সেপ্টেম্বর ভারত-পাকিস্তান দুবাই
২০ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ–আফগানিস্তান আবুধাবি

 

সুপার ফোর(তারিখ)                 ম্যাচ   ভেন্যু
২১ সেপ্টেম্বর গ্রুপ ‘এ’ জয়ী-গ্রুপ ‘বি’ রানার্স-আপ দুবাই
২১ সেপ্টেম্বর গ্রুপ ‘বি’ জয়ী-গ্রুপ ‘এ’ রানার্স-আপ আবুধাবি
২৩ সেপ্টেম্বর গ্রুপ ‘এ’ জয়ী-গ্রুপ ‘এ’ রানার্স-আপ দুবাই
২৩ সেপ্টেম্বর গ্রুপ ‘বি’ জয়ী-গ্রুপ ‘বি’ রানার্স-আপ আবুধাবি
২৫ সেপ্টেম্বর গ্রুপ ‘এ’ জয়ী-গ্রুপ ‘বি’ জয়ী দুবাই
২৬ সেপ্টেম্বর গ্রুপ ‘এ’ রানার্স-আপ-গ্রুপ ‘বি’ রানার্স-আপ আবুধাবি
২৮ সেপ্টেম্বর     ফাইনাল                       দুবাই

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

August 2018
M T W T F S S
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
2728293031  
আরও পড়ুন