৬ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ ইং | ২৪শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

EN

নববর্ষের বৈশাখী শুভেচ্ছা

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ২:৩৭ পূর্বাহ্ণ , ১৪ এপ্রিল ২০১৮, শনিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 5 years আগে

জহির রায়হান: এসো হে বৈশাখ…….। আজ পহেলা বৈশাখ, বাংলা নববর্ষ। বাঙালি সংস্কৃতির প্রধান উৎসব। প্রাণে প্রাণ মেলানোর উৎসব। জীর্ণ পুরনোকে ভাসিয়ে দিয়ে নতুন করে যাত্রা শুরুর দিন। এ দিনটিতে ধর্ম, বর্ণ, শ্রেণী নির্বিশেষে সবার উৎসবমুখর হয়ে ওঠার দিন।

কবির ভাষায়, আজ নব আনন্দে জাগুক প্রাণ। নতুন সূর্যের সামনে আজ বাঙালি প্রণতি রাখবে “জীর্ণ পুরাতন সব ভেসে যাক, মুছে যাক গ্লানি’/ তাপস নিঃশ্বাস বায়ে মুমূর্ষুরে দাও উড়ায়ে”। বাঙালি সংস্কৃতির এক অসাধারণ ব্যঞ্জনা নিয়ে আমাদের দুয়ারে এবারের নববর্ষ সমুপস্থিত।

প্রাণে প্রাণে হিল্লোল জাগাতে, মনে-মনে ঐকতান রচনা করতে আর মানুষে মানুষে বিভেদ ঘুচাতে নববর্ষের নব চেতনায় স্নাত করে সবাইকে। সেই কাকডাকা ভোরে পূর্ব দিগন্তে বছরের প্রথম দিনের সূর্যদয়ের অপেক্ষায় বাঙালি চিত্ত অধীর হয়। আর সে সূর্য অতি সন্তর্পণে বসন্তের শেষ দিবসের কুহেলিকা ভেদ করে ১লা বৈশাখে তার হাসিরচ্ছটায় বাঙলার প্রকৃতিতে তার নবীন রূপ-রস-গন্ধ সুধা কানায় কানায় পূর্ণ করে তোলে।

নববর্ষ আমাদের জাতীয় উৎসব। এটি ধর্ম বা সম্প্রদায়নির্ভর কোন অনুষ্ঠান নয়। এটি সব শ্রেণীর, সব গোত্রের, সব অঞ্চলের, সব স্তরের বাঙালির জাতীয় উৎসব। এই উৎসবের মূল বাণী হল নতুন বছরে আমার আনন্দটুকু সবার আনন্দ হোক, আমার শুভটুকু সকলের শুভ হয়ে উঠুক। সবার সঙ্গে আমার যোগ হোক প্রীতিময়, হোক গভীরতর। এই শুভকামনা বাঙালি শুধু সকল বাঙালির জন্য কামনা করেনা, কামনা করে সকল মানুষের জন্য।

বৈশাখের আগমনী সেতো রুদ্র ঝড়ের নৃত্য! নটরাজ যেন তার প্রলয় নাচন নাচতে বৈশাখের রথে চেপে নেমে আসে বাঙলার প্রকৃতিতে। নববর্ষ আমাদের সংস্কৃতিকে আমাদের সভ্যতাকে আমাদের ভেতরকার সত্যিকার মানুষটিকে তথা মনুষ্যত্বকেই সকলের সামনে উঁচু করে মেলে ধরে।

নতুন বছর আমাদের সবার জীবনে বয়ে আনুক অনাবিল সুখ, সমৃদ্ধি ও শান্তি। নতুন সূর্যের আলোয় আলোকিত হোক আমাদের প্রিয় মাতৃভূমি। ব্রাহ্মণবাড়িয়া টাইমস ডটকম অনলাইন পত্রিকার সকল পাঠক, লেখক, বিজ্ঞাপণদাতা ও শুভানুধ্যায়ীর প্রতি রইলো আন্তরিক শুভেচ্ছা। ১৪২৫ সালের শুভাগমনকে ঘিরে সমস্ত উৎসব আয়োজন আনন্দময় হোক, নির্বিঘ্ন হোক। শুভ নববর্ষ ১৪২৫ খ্রিস্টাব্দ।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

April 2018
M T W T F S S
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
30  
আরও পড়ুন